শ্রীলঙ্কা সফর নিয়ে সর্বশেষ অবস্থা জানালেন বিসিবি সিইও

শ্রীলঙ্কা সফর নিয়ে সর্বশেষ অবস্থা জানালেন বিসিবি সিইও

0
20
fb-share-icon20

ক্রীড়া প্রতিবেদক, প্রেসবাংলা২৪.কম: করোনা মহামারীতে ক্রীকেট খেলা এখন বন্ধ। সামনে শ্রীলঙ্কা সফরের জন্য অপেক্ষা।  কোয়ারেন্টাইন নিয়ে একটা ধোঁয়াশে ভাব রয়েছে। সফরসূচিও চূড়ান্ত হয়নি এখন পর্যন্ত। তাই ‘হবে-হবে’ করেও ঘোষণা হচ্ছে না শ্রীলঙ্কা সফরের দল। আসলে টাইগারদের লঙ্কা সফরের সর্বশেষ অবস্থা কি? বিসিবির সাথে লঙ্কান ক্রিকেট বোর্ডের কথাবার্তা ঠিক কোন পর্যায়ে আছে কিংবা কি কথা হচ্ছে?

 

বিসিবির প্রধান নির্বাহী নিজামউদ্দীন চৌধুরী সুজন জানান, লঙ্কান ক্রিকেট বোর্ডের সঙ্গে তাদের নিয়মিত যোগাযোগ হচ্ছে। বিসিবি থেকে লঙ্কান বোর্ডের কাছে কিছু তথ্য জানতে চাওয়া হয়েছিল। সেই প্রেক্ষিতে লঙ্কান বোর্ড নিজ দেশের স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের সঙ্গে যোগাযোগ করছে।

 

নিজামউদ্দীন চৌধুরী সুজন বলেন, ‘প্রত্যেকটি দেশেই পরিবর্তিত পরিস্থিতি বৈশ্বিক মহামারির কারণে। শ্রীলঙ্কায়ও বিভিন্ন নিয়ম-কানুন জারি হয়েছে। আমাদের দল যখন সফর করবে, সেই কথা চিন্তা করে তারা বিষয়টিকে কতটা সহনীয় পর্যায়ে নিয়ে আসা যায়, সে ব্যাপারে তাদের স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের সঙ্গে যোগাযোগ করছে। এভাবেই আমাদের জানাচ্ছে।’

 

সফরের সর্বশেষ অবস্থা নিয়ে বিসিবি সিইওর কথা, ‘আমরা আমাদের প্রস্তুতি নিচ্ছি। আমাদের প্রস্তুতি তো আর বন্ধ রাখা যাবে না। আমাদের ট্রাভেল বুকিং, অনুশীলন পরিকল্পনা, ঢাকায় আমরা কবে থেকে অনুশীলন শুরু করবো, এগুলো পরিকল্পনা করে রেখেছি। সেভাবেই আমাদের কার্যক্রম চলছে।’

 

আচ্ছা, লঙ্কান বোর্ড কি ইচ্ছা করেই দেরি করছে? এমন প্রশ্নে বিসিবি সিইওর জবাব, ‘আমার মনে হয় না তারা ইচ্ছা করে দেরি করছে। তারা সম্পূর্ণভাবে চেষ্টা করছে যে তাদের যে সংশ্লিষ্ট মন্ত্রণালয় আছে, তাদের সঙ্গে কথা বলে আনুষ্ঠানিক কার্যক্রমগুলো সম্পন্ন করার। গতকালও আমাদের সঙ্গে কথা হয়েছে। আমরা আশা করছি, আগামী দু-তিনদিনের মধ্যে তাদের কাছ থেকে চূড়ান্ত বিষয়গুলো জানতে পারবো।’

 

করোনা পরিস্থিতির সঙ্গে মানিয়ে একটি সফর সম্পন্ন করা খুব একটা সহজ কাজ নয় উল্লেখ করে নিজামউদ্দিন চৌধুরী সুজন বলেন, ‘আসল সফরটা হবে এক মাস পরে। তখন অবস্থাটা বোঝা যাবে। ওই সময় আমাদের দেশের পরিস্থিতি কি হবে, তাদের দেশের পরিস্থিতি কি হবে, সে অনুযায়ী ওদের পরিকল্পনা বাস্তবায়ন করতে হবে। এটা এত সহজ ব্যাপার নয়। এমন নয় যে নিরাপত্তার সমস্যা, ৫০০ পুলিশের জায়গায় ৫ হাজার দিলাম। এটা অন্য বিষয়। এ থেকে কেউই কিন্তু সফলভাবে বের হয়ে আসতে পারছে না। এটা বড় একটি চ্যালেঞ্জ।’

 

 

0
20
fb-share-icon20
0 0 vote
Article Rating
Subscribe
Notify of
guest
0 Comments
Inline Feedbacks
View all comments
কপিরাইট © ২০২০ | প্রেসবাংলাটুয়েন্টিফোরডটকম
0
Would love your thoughts, please comment.x
()
x